শিরোনাম :

জয়পুরহাটে টমেটো চাষ করে স্বাবলম্বী চাষীরা


সোমবার, ১৫ জানুয়ারি ২০১৮, ০৪:২৯ অপরাহ্ণ, বাংলাপ্রেস ডটকম ডটবিডি

জয়পুরহাটে টমেটো চাষ করে স্বাবলম্বী চাষীরা

ডেস্ক প্রতিবেদন: জয়পুরহাট জেলার সদর উপজেলার দড়িপাড়া গ্রামের কৃষক রেজাউল করিম আগাম জাতের টমেটো চাষ করে সফল হয়েছেন। তিনি এখন আর্থিক দিক থেকে স্বাবলম্বী। তার সফলতা দেখে এলাকার অন্যান্য কৃষকরাও এগিয়ে আসছেন টমেটোসহ আগাম জাতের সবজি চাষে।

স্থানীয় কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর জানায়, জেলায় এবার ১২ শ হেক্টর জমিতে বিষমুক্ত বিভিন্ন সবজির চাষ হয়েছে। যা গত বছর ছিল ৫ শ হেক্টর। বে-সরকারি সংস্থা গুলোও বিষমুক্ত সবজি চাষে কৃষকদের সহযোগিতা করছেন।

পল্লীকর্ম সহায়ক ফাউন্ডেশন সমৃদ্ধি কর্মসূচীর আওতায় কৃষকদের বিষমুক্ত সবজি চাষে উদ্বুদ্ধকরণ কার্যক্রম গ্রহণ করেছেন। সেই আলোকে স্থানীয় বে-সরকারি উন্নয়ন সংস্থা ’জাকস ফাউন্ডেশন” ১ শ ৬২ একর জমিতে বিষমুক্ত সবজি চাষে কৃষকদের সহযোগিতা করেছে। পোকা দমনে কীটনাশক বা বিষের বদলে ব্যবহার করা হয়েছে ফেরোমন ফাঁদ।

সদর উপজেলার দড়িপাড়া গ্রামের রেজাউল করিম ৯০ শতক জমিতে এবার টমেটো চাষ করে লাভবান হয়েছেন বলে জানান। শুধু টমেটো থেকেই দুই লাখের অধিক টাকায় আয়ের আশা করছে রেজাউল। বাজারে প্রথমে ১শ টাকা কেজি বিক্রি হলেও বর্তমান বাজারে ৪০/৫০ টাকা কেজি টমেটো বিক্রি হচ্ছে।

তিনি টমেটোর সাথে অন্যান্য সবজিও চাষ করে থাকেন। তার সবজি চাষ দেখে একই এলাকার আশরাফুল ইসলাম ৩৩ শতক জমিতে বাধা কপি ও তসলিম উদ্দিন ৩৩ শতক জমিতে ফুল কপি বিষমুক্ত হিসাবে চাষ করেছেন।

আগাম জাতের টমেটোসহ সবজি চাষে দাম ভাল পাওয়া যায় বলে জানান কৃষকরা। বাজারে বিষমুক্ত সবজির চাহিদা বেশী সে কারনে বিষমুক্ত বিভিন্ন সবজি চাষে কৃষকদের সহযোগিতা করার কথা জানান জাকস ফাউন্ডেশনের নির্বাহী পরিচালক নুরুল আমিন।

জেলায় কৃষকদের মধ্যে বিষমুক্ত সবজি চাষে আগ্রহ বৃদ্ধি পাচ্ছে বলে জানান জয়পুরহাট সদর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা সেরাজুল ইসলাম।

এ বিভাগের আরো সংবাদ

মন্তব্য করুন