শিরোনাম :

দুটি মৃত্যু সনদ দেয়ায় মামলা


মঙ্গলবার, ৭ নভেম্বর ২০১৭, ০৫:০২ অপরাহ্ণ, বাংলাপ্রেস ডটকম ডটবিডি

বরিশাল প্রতিনিধি: রেজিস্টারে কাটা ছেড়া করে একই ব্যক্তির নামে দুটি মৃত্যু সনদ দেয়ায় ইউপি সচিব ও গ্রাম পুলিশসহ তিন জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছে চেয়ারম্যান।

সোমবার শেষ কার্যদিবসে বরিশালের অতিরিক্ত চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট শিহাবুল ইসলামের বিচারাধীন আদালতে মামলাটি দায়ের করেছেন গৌরনদীর চাঁদশী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ও উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি কৃষ্ণ কান্ত দে।

মামলায় পরিষদের সাবেক সচিব অবিনাস বাড়ৈ সৌরভ, উত্তর নাঠৈ গ্রামের গ্রামপুলিশ সন্তোষ কুমার ও সৈয়দ মনজুকে অভিযুক্ত করা হয়েছে। বিচারক মামলার অভিযোগের তদন্ত করে প্রতিবেদন দাখিলের জন্য ডিবি পুলিশকে আদেশ দিয়েছেন।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, চেয়ারম্যান কৃষ্ণ কান্ত দে তার অভিযোগে উল্লেখ করেন তিনি অসুস্থ্য থাকার সুবাধে অভিযুক্তরা সৈয়দ মনজুর আবেদনের প্রেক্ষিতে অবৈধভাবে লাভবান হয়ে সৈয়দ জবেদ আলীর স্ত্রী মরহুমা সৈয়দা হালিমনন্নেছার মৃত্যুর সনদ দিয়েছে। পরস্পরের যোগসাজশে অভিযুক্তরা রেজিস্টার কাটাছেড়া করে গত ১৮ এপ্রিল (২ নভেম্বর ১৯৮০) মৃত্যু দেখিয়ে হালিমন্নেছার মৃত্যুর সনদ দিয়েছে। এর আগেও তারা ১৯৮৭ সালের ৪ মার্চ মৃত্যু দেখিয়ে হালিমন্নেছার মৃত্যু সনদ প্রদান করেন।

প্রথমবারের দেয়া সনদের বিষয়টি গোপন রেখে অভিযুক্তরা দ্বিতীয়বার সনদ প্রদান করেছেন। বিষয়টি ধরা পড়ার পর অভিযুক্তদের শোকজ দেয়া সত্বেও তারা (অভিযুক্তরা) সন্তোষজনক জবাব না দিয়ে উল্টো চেয়ারম্যানকে বিভিন্নভাবে ফাঁসানোর চেষ্ঠা করেন।

 

এ বিভাগের আরো সংবাদ

মন্তব্য করুন