শিরোনাম :

সবজির দামে কিছুটা স্বস্তি, অস্বস্তি চালে


শুক্রবার, ৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ১২:০৬ অপরাহ্ণ, বাংলাপ্রেস ডটকম ডটবিডি

সবজির দামে কিছুটা স্বস্তি, অস্বস্তি চালে

ডেস্ক প্রতিবেদন: নিত্যপণ্যের বাজারে চাল ছাড়া বিভিন্ন ধরনের মৌসুমি সবজি ও কাঁচা মরিচের দাম কিছুটা কমায় স্বস্তি দিচ্ছে ক্রেতাদের।এদিকে দাম না কমলেও স্থিতিশীল রয়েছে মাছ-মাংসসহ অন্যান্য নিত্যপণ্য।

এখনও স্বাভাবিক পর্যায়ে না এলেও দাম কমতে শুরু করায় স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলছেন ক্রেতারা।সরবরাহ বাড়ায় ও আমদানি করা পেঁয়াজের দাম কমায় বাজারে পর্যাপ্ত পণ্য আসছে।

শুক্রবার রাজধানীর হাজারীবাগ, নিউমার্কেট, ধানমন্ডি, মিরপুর কাঁচাবাজারে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, বেগুন বিক্রি হচ্ছে আগের দামেই ৬০ টাকা, কাঁচামরিচ ১০ টাকা বেড়ে বিক্রি হচ্ছে ৮০ টাকা, পেঁপে ৩৫ টাকা, শিম ৪০ থেকে ৬০ টাকা, দেশি টমেটো ১০ টাকা কমে ৩০ টাকা, গাজর ৪০ টাকা, শসা ৩০ টাকা, মূলা ২০ টাকা, আলু ২৫ টাকা, প্রতি পিস বাঁধাকপি ৩০ টাকা, প্রতি পিস ফুলকপি বড় ৪০ টাকা এবং ছোট ৩০ টাকা, বরবটি ৪০ টাকা বেড়ে ১০০ টাকা, চিচিঙ্গা ৬০ টাকা, পেঁয়াজ পাতা এক আঁটি ১৫ টাকা করে বিক্রি হচ্ছে। এ ছাড়া এক আঁটি লাল শাক ১৫ টাকা ও ধনিয়াপাতা ১০০ টাকা কেজি।

প্রতি কেজি গরুর মাংস ৫০০ টাকা, খাসির মাংস ৭০০ থেকে ৭৫০ টাকা, ব্রয়লার মুরগি ১৪০ টাকা, দেশি মুরগি ২৪০ টাকা কেজি, লেয়ার মুরগি প্রতি পিস আকারভেদে ১৫০ থেকে ২২০ টাকা ও পাকিস্তানি মুরগি ২৫০ থেকে ৩০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

এছাড়া অপরিবর্তিত রয়েছে রসুন, চিনি, আদা, ডালের দামও।বাজারে দেশি রসুন ৮০ টাকা, আমদানি করা রসুন ৮৫ টাকা, চিনি ৫৫ থেকে ৬০ টাকা, দেশি মসুর ডাল ১০০ থেকে ১২০ টাকা ও আমদানি করা মসুর ডাল ৬০ টাকা কেজি করে বিক্রি হচ্ছে। স্থিতিশীল দামে বিক্রি হচ্ছে ভোজ্য তেলও।

এ বিভাগের আরো সংবাদ

মন্তব্য করুন