শিরোনাম :

৩১ জানুয়ারির মধ্যে চলে যাবে অ্যাকোর্ড ও অ্যালায়েন্স


বৃহস্পতিবার, ৩১ মে ২০১৮, ০৩:৪৯ অপরাহ্ণ, বাংলাপ্রেস ডটকম ডটবিডি

৩১ জানুয়ারির মধ্যে চলে যাবে অ্যাকোর্ড ও অ্যালায়েন্স

ডেস্ক প্রতিবেদন: পৃথিবীর কোথাও ইউরোপ ও আমেরিকার ক্রেতাদের জোট অ্যাকোর্ড ও অ্যালায়েন্সের কার্যক্রম নেই। বাংলাদেশেও তাদের প্রয়োজন নেই। আগামী ৩১ জানুয়ারির মধ্যে দেশের পোশাক কারখানায় তাদের কার্যক্রম গুটিয়ে নিয়ে চলে যাবে। বললেন বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ।

আজ(বৃহস্পতিবার) বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ে বাংলাদেশ তৈরি পোশাক প্রস্তুত ও রপ্তানিকারক সমিতি (বিজিএমইএ), বাংলাদেশ নিটওয়্যার ম্যানুফ্যাকচারার্স অ্যান্ড এক্সপোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশন (বিকেএমইএ), বাংলাদেশ শিল্প ও বণিক সমিতি ফেডারেশন (এফবিসিসিআই) সহ ৮টি সংগঠনের সঙ্গে বৈঠকে এ ঘোষণা দেন বাণিজ্যমন্ত্রী।আসন্ন ঈদুল ফিতর সুষ্ঠুভাবে উদযাপনে তৈরি পোশাক শিল্পখাতের শ্রমিকদের বেতন, বোনাস ও অন্যান্য ভাতাদি সময় মতো পরিশোধের বিষয়ে তাগিদ দেয়া হয়।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, ১০ তারিখের মধ্যে মে মাসের পূর্ণ বেতন এবং ১৪ তারিখের আগে বোনাস পরিশোধ করতে হবে।

তিনি আরও বলেন, ঈদের আগে কোনো শ্রমিককে ছাঁটাই করা চলবে না। শ্রমিক অসন্তোষ দেখা দেয় এমন কোনো কর্মকাণ্ড করা যাবে না।

তোফায়েল আহমেদ বলেন, অ্যাকর্ড-অ্যালায়েন্সের মেয়াদ শেষ হয়েছে। উন্নত কোনো দেশেই এদের ঢুকতে দেয়া হয় না। বাংলাদেশ একটা মর্যাদাকর দেশে, এদেশে তাদের আর ঠাঁই নেই।

রানা প্লাজার ধস এবং তাজরীন গার্মেন্টসে অগ্নিকাণ্ডে কয়েকশ শ্রমিক নিহতের প্রেক্ষাপটে ইউরোপ এবং আমেরিকার ক্রেতাদের দুটি জোট অ্যাকর্ড ও অ্যালায়েন্স বাংলাদেশ সরকার এবং গার্মেন্টস মালিকদের সাথে একটি চুক্তি করেছিল। তারা দেশের পোশাক কারখানাগুলো পরিদর্শন করে, বিভিন্ন পরামর্শ দিতো। সে অনুযায়ী অ্যালায়েন্স ইতোমধ্যেই তাদের কাজ শেষ করেছে আর চলতি বছর মে মাসে শেষ হবে অ্যাকর্ডের কাজ।

এ বিভাগের আরো সংবাদ

মন্তব্য করুন