শিরোনাম :

তিশাকে নিয়ে বুয়েটে তৌকীর


রবিবার, ৩ ডিসেম্বর ২০১৭, ০২:০২ অপরাহ্ণ, বাংলাপ্রেস ডটকম ডটবিডি

তিশাকে নিয়ে বুয়েটে তৌকীর

বিনোদন ডেস্ক: সারা দেশের ৮০টিরও বেশি প্রেক্ষাগৃহে প্রদর্শিত হচ্ছে তৌকীর আহমেদ পরিচালিত চলচ্চিত্র ‘হালদা’। সিনেমাটিতে অভিনয় করেছেন নুসরাত ইমরোজ তিশা। এবার অভিনেত্রী তিশা ও নির্মাতা তৌকীরকে দেখা গেলো বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট) ক্যাম্পাসে।

হালদা’র অভিনেত্রীকে নিয়ে বুয়েটে কেন তৌকীর? প্রায় সবাই জানেন তৌকীর বুয়েট থেকে স্থাপত্যকলা বিষয়ে স্নাতন সম্পন্ন করেছেন। গতকাল শনিবার নিজের ক্যাম্পাসে পাওয়া গেলো এই নির্মাতাকে। তার সঙ্গে ছিলেন অভিনেত্রী তিশা।একটি আলোকচিত্র প্রদর্শনীতে অতিথি হয়ে নিজের ক্যাম্পাসে গিয়েছিলেন তৌকীর। সেই অনুষ্ঠানে অংশ নেয়ার পাশাপাশি অভিনেত্রী তিশাকে নিয়ে হালদা’র প্রচারণাও করলেন।

ইউএনডিপি, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের এটুআই প্রোগ্রাম এবং অংশীদার সংস্থাসমূহের সম্মিলিত উদ্যোগে সপ্তাহব্যাপি স্মার্ট সিটি ক্যাম্পেইনের অংশ হিসেবে গতকাল শনিবার বুয়েট আর্কিটেকচার ডিপার্টমেন্টের সামনের চত্বরে বুয়েট ফটোগ্রাফি সোসাইটির আয়োজনে `আওয়ার সিটি, আওয়ার ভিশন’ শিরোনামের তিন দিনব্যাপি সবার জন্য উন্মুক্ত প্রদর্শনীর উদ্বোধন করেন তৌকীর আহমেদ।

তৌকীর বলেন, বিপন্ন নদী ও পরিবেশ রক্ষার কথা ‘হালদা’ সিনেমায় বলতে চেয়েছি। এই ফটোগ্রাফি প্রদর্শনীও একই রকম ম্যাসেজ দেয়ার চেষ্টা করছে। তাছাড়া বুয়েট আমার নিজের ক্যাম্পাস। তাই তিশাকে নিয়ে এখানে এসেছি। বুয়েটের অনেকেই হালদা দেখেছেন। তাদের প্রতিক্রিয়াও আমার সঙ্গে শেয়ার করেছেন।

এদিকে ‘হালদা’ দেশ ছাড়িয়ে যাচ্ছে আমেরিকা, কানাডা, ওমান এবং আরব-আমিরাতের (ইউএই) বিভিন্ন শহরের ২০টি প্রেক্ষাগৃহে।আগামী ৮ ডিসেম্বর থেকে যুক্তরাষ্ট্রের ৫টি শহরের প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পাচ্ছে ‘হালদা’।শহরগুলো হলো নিউইয়র্ক, লস অ্যাঞ্জেলস, ডালাস, ফ্লোরিডা ও ভার্জিনিয়া।সেখানে রিগ্যাল ও সিনেমার্ক মাল্টিপ্লেক্সে দর্শকরা ছবিটি উপভোগ করতে পারবেন।একই দিনে ছবিটি মুক্তি পাচ্ছে কানাডার টরন্টো আর মিসিসাগা শহরে।১৯ জানুয়ারি মুক্তি পাবে দেশটির এডমন্টন (প্রথমবারের মত), ক্যালগেরি এবং উইনিপেগ শহরের ৩টি প্রেক্ষাগৃহে। অন্যদিকে ৮ ডিসেম্বর আমেরিকা, কানাডা ছাড়াও ‘হালদা’ মুক্তি পাচ্ছে ওমানের ৪টি প্রেক্ষাগৃহে। পর্যায়ক্রমে ইউএই-এর ৬টি শহরেও মুক্তির কথা রয়েছে ছবিটি।

এ বিভাগের আরো সংবাদ

মন্তব্য করুন