শিরোনাম :

পুরুষদের কপালে দুঃখ আছে: শ্রদ্ধা কাপুর


শনিবার, ২৮ জুলাই ২০১৮, ০১:৩৭ পূর্বাহ্ণ, বাংলাপ্রেস ডটকম ডটবিডি

পুরুষদের কপালে দুঃখ আছে: শ্রদ্ধা কাপুর

বিনোদন ডেস্ক: 'ইস সাল মর্দ কো দরদ হোগা' (এবছর পুরুষদের কপালে দুঃখ আছে), আগেই জানিয়ে দিয়েছেন বলিউড অভিনেত্রী শ্রদ্ধা কাপুর। সৌজন্যে, স্ত্রী। তবে শ্রদ্ধা কাপুরের কথা মতোই যে ছেলেদের কপালে দুঃখই জুটতে চলেছে তা বেশ বোঝা যাচ্ছে 'স্ত্রী'-এর ট্রেলারে।

ট্রেলারের শুরুটা হয়েছে গল্পের আকারে। যা শুনলে বুকের মধ্যে যেন ধরাস করে ওঠে। তা বলাই বাহুল্য। গল্পের শুরুতে বলা হচ্ছে। বেশ কয়েক বছর আগে শহরে এক সুন্দরী নারী ছিলেন যার জন্য সব পুরুষরা পাগল ছিল। তবে সেই নারী সঙ্গে বিয়ে হল এমন পুরুষের তিনি ওই সুন্দরীর হৃদয়কে ভালোবাসতেন।

বলা যেতে পারে, তার প্রেমে ছিল শুধুই 'পুজা', যেখানে শরীরের কোনও স্থানই নেই। আর এই গল্পের পরেই দেখানো হচ্ছে পেশায় দর্জি ভিকি-কে ( রাজকুমার রাও)। যিনি মেয়েদের সব ধরনের পোশাক বানান। চুড়িদার থেকে শুরু করে নাইটি পর্যন্ত। সেই ভিকি এবার প্রেমে পড়েছেন এক সুন্দরী মেয়ের (শ্রদ্ধা কাপুর)। যে মেয়েটি শুধুমাত্র পুজোর সময়ই আসত প্রেমিকের সঙ্গে সময় কাটাতে, বাকি সারা বছর তাকে আর দেখা যেত না। তাই ভিকির বন্ধু-বান্ধবদের বক্তব্য তিনি নাকি ভূতের সঙ্গেই প্রেম করছেন। যদিও ভিকি সেটা বিশ্বাস করতে চায় না।

আর এর পরেই দেখানো হচ্ছে ক্লাইমেক্স, যেখানে ফের বলা হচ্ছে, আগামী ৪ রাত নাকি শিকার করতে আসছে 'স্ত্রী'। যে এসে পুরুষদের টেনে নিয়ে যাবে, পরে শুধুই সেই পুরুষের বস্ত্রটি পড়ে থাকবে। তাঁকে আর খুঁজে পাওয়া যাবে না। তাই কেউ রাতে নাম ধরে ডাকলে যেন সাড়া না দেওয়া হয়। তবে প্রশ্ন হল ভূত অর্থাৎ সকলের নাম কীভাবে জানল? উত্তরে গল্পকার বলছেন স্ত্রী (ভূত)-এর কাছে নাকি সবার আধার লিঙ্ক আছে।

কী শুনে হাসি পেল তো? ভাবছেন এ আবার কেমন কথা!

আসলে 'স্ত্রী' হল একটি হরর কমেডি। যেখানে মজার ছলেই ভৌতিক গল্প উপস্থাপন করা হবে। তবে সেটি ঠিক কেমন হতে চলেছে তা জানা যাবে সিনেমাটি মুক্তি পাওয়ার পর। তবে আপাতত 'স্ত্রী'র ট্রেলার দেখেই খুশি থাকতে হবে।

ট্রেলার দেখে বেশ বোঝা যাচ্ছে এই ছবিটি বেশ জমে 'স্ত্রী'-এর গল্প বেশ জমে উঠতে চলেছে। কি তাই না?

এ বিভাগের আরো সংবাদ

মন্তব্য করুন