শিরোনাম :

মোদিকে কটাক্ষ করলো রাহুল


শুক্রবার, ৮ মার্চ ২০১৯, ০৪:২১ অপরাহ্ণ, বাংলাপ্রেস ডটকম ডটবিডি

মোদিকে কটাক্ষ করলো রাহুল

আন্তর্জাতিক: ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে পাকিস্তানের পোস্টার বয় বলে অভিহিত করেছেন তার প্রধান রাজনৈতিক প্রতিপক্ষ কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী। মোদিকে কটাক্ষ করে রাহুল বলেন, আমরা তো নওয়াজ শরিফের পরিবারের বিয়েতে যাইনি। পাঠানকোটে আইএসআইকে আমন্ত্রণ জানাইনি। যিনি করেছেন, তিনিই পাকিস্তানের পোস্টার বয়।

কাশ্মীর নিয়ে পাক-ভারত উত্তেজনা নিয়ে ভারতে যারা আক্রমণাত্মক মনোভাব দেখাননি, তাদের বিজেপির পক্ষ থেকে সমালোচনা করা হচ্ছে। বলা হচ্ছে- যারা কাশ্মীর ইস্যুতে নীরব, তারা পাকিস্তানের পোস্টার বয় (দালাল)। শুক্রবার এর জবাব দিয়েছেন রাহুল গান্ধী। তিনি নির্বাচন সামনে রেখে কাশ্মীর ইস্যুকে কাজে লাগিয়ে মোদি ফায়দা লুটার চেষ্টা করছেন বলেও অভিযোগ করেন রাহুল।

রাহুল গান্ধী আরও বলেন, পুলওয়ামায় জঙ্গি হামলায় ভারতীয় সেনা নিহতের পর কংগ্রেস স্তব্ধ হয়ে পড়ে; কিন্তু প্রধানমন্ত্রী এক নিমেষের জন্যও রাজনীতি ছাড়েননি। তিনি লাশ নিয়ে রাজনীতি করেছেন। তাই পুরনো বিষয়গুলো সামনে এনে মোদিকে কাঠগড়ায় দাঁড় করানোর সময় এসেছে।

রাফাল দুর্নীতিতে মোদিকে জড়িয়ে কংগ্রেস সভাপতি বলেন, রাফাল ফাইলই বলছে- নরেন্দ্র মোদি ‘বাইপাস সার্জারি’ করে অনিল আম্বানিকে ৩০ হাজার কোটি টাকা পাইয়ে দিতে সমঝোতা করেছেন। ফাইল চুরি গেলে সিএজি কী করে রিপোর্ট তৈরি করল? সুপ্রিমকোর্টেই বা কী দেখানো হলো?

রাহুল গান্ধী আরও বলেন, আমাদের দলের নানা লোক নানা মন্তব্য করছেন। আমি তার মধ্যে যাব না। কিন্তু নিহত জওয়ানদের পরিবারই বলছে- সরকার দেখাক আসলে কী হয়েছে।

প্রসঙ্গত গত ১৪ ফেব্রুয়ারি ভারতনিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরের পুলওয়ামায় দেশটির আধাসামরিক সিআরপিএফের গাড়িবহরে আত্মঘাতী হামলায় ৪৪ জওয়ান নিহত হন। পাকিস্তানভিত্তিক জঙ্গি সংগঠন জইশ-ই-মোহাম্মদ এ হামলার দায় স্বীকার করে। এর পর থেকেই দুই প্রতিবেশী দেশের মধ্যে নতুন করে উত্তেজনা ছড়ায়। ভারত এ হামলার পেছনে পাকিস্তানের মদদ রয়েছে বলে দাবি করে আসছে।

এ ঘটনার ১২ দিন পর ২৬ ফেব্রুয়ারি কাশ্মীরের নিয়ন্ত্রণরেখা পেরিয়ে পাকিস্তানের বালাকোটে বিমান হামলা চালায় ভারতীয় বাহিনী। হামলায় ২০০ থেকে ৩০০ জঙ্গি নিহত হন বলে দাবি করেছে দেশটি।

এখানেই থেমে নেই, গত বুধবার পাকিস্তান সীমান্তে ভারতীয় দুই যুদ্ধবিমানকে ভূপাতিত করেন পাকিস্তানি সেনারা। জবাবে ভারত পাকিস্তানের দুটি যুদ্ধবিমানকে ভূপাতিত করে।

ঘটনাপ্রবাহে পাকিস্তান বাহিনীর হাতে বন্দি হন দেশটির এক পাইলট। আর পাকিস্তান হারায় একটি যুদ্ধবিমান।

পরে নানা নাটকীয়তার পর গত শুক্রবার তাকে মুক্তি দেয় ইমরান খানের পাকিস্তান।

এ বিভাগের আরো সংবাদ

মন্তব্য করুন