ব্রেকিং নিউজ
বাংলাপ্রেস-এর ফেসবুক পেজটি হ্যাকড হওয়ায় আমরা আন্তরিকভাবে দুঃখিত। পেজটি উদ্ধারের চেষ্টা চলছে।
শিরোনাম :

কীভাবে পারল নিউ জিল্যান্ড!


মঙ্গলবার, ৯ জুন ২০২০, ১০:৪১ পূর্বাহ্ণ, বাংলাপ্রেস ডটকম ডটবিডি

কীভাবে পারল নিউ জিল্যান্ড!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: নিউ জিল্যান্ড দেখিয়ে দিল সেই গন্তব্যের ঠিকানা। কীভাবে মৃত্যুর চক্রব্যূহ থেকে বেরিয়ে এক বুক অক্সিজেন নেওয়া যায়। করোনা মুক্তির খবর পেয়ে ঠিক থাকতে পারেননি নিউ জিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জাসিন্ডা আরদেন। নিজের ড্রয়িংরুমে মেয়েকে নিয়ে আনন্দে নাচতে থাকেন তিনি। সাংবাদিক বৈঠক করে সগর্বে জানান, হ্যাঁ, আমরা করে দেখিয়েছি।

এই প্রথম বিশ্বের কোনও দেশ করোনা থেকে মুক্ত হতে পেরেছে। গত ১৭ দিনে একটিও করোনা পজেটিভের খবর মেলেনি। ওই সময় প্রায় ৪০ হাজার নমুনা পরীক্ষা করা হয়। রেজাল্ট জিরো। মঙ্গলবার মধ্যরাত থেকে খুলছে দোকানপাট, অফিস-কাছারি, শপিংমল, সিনেমা হল। অর্থনীতির চাকায় শান দিতে পর্যটন ক্ষেত্রকেও চাঙ্গা করার পরিকল্পনা শুরু হয়ে গেছে। সবার মনে একটাই কৌতূহল দানা বেঁধেছে, কীভাবে পারল নিউ জিল্যান্ড!

করোনা ফ্ল্যাশব্যাক:

মোট আক্রান্ত- ১১৫৪

মৃত- ২২

গত ২৮ ফেব্রুয়ারি থেকে লড়াই শুরু হয় নিউ জিল্যান্ডের। ১৭ মার্চ ১২ জন আক্রান্ত খবর মেলে। ২৪ মার্চ ১০৩ জন। ২৮ মার্চ একেবারে সর্বোচ্চ স্তরে পৌঁছয়। মাত্র ১৪৬ জন। তারপর এক সপ্তাহ একশোর নীচে। ৮ এপ্রিল থেকে ১৯ মে পর্যন্ত করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৫০ নীচে ছিল। সেই শেষ। তারপর টানা ১৭ দিন কোনও করোনা সংক্রমণের খবর মেলেনি।

লকডাউন : গত ১৯ মার্চ ২৮ জনের করোনা পজেটিভের খবর মেলে। এরপরই আর্দিন সরকার সিদ্ধান্ত নেয় সীমান্ত বন্ধ করার। একশো জনের বেশি জমায়েতে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়।

এ বিভাগের আরো সংবাদ

মন্তব্য করুন