শিরোনাম :

পাবনায় শীতে জনজীবন বিপর্যস্ত


রবিবার, ৭ জানুয়ারি ২০১৮, ০৭:৩৩ অপরাহ্ণ, বাংলাপ্রেস ডটকম ডটবিডি

পাবনায় শীতে জনজীবন বিপর্যস্ত

পাবনা প্রতিনিধি: স্মরণকালের সর্বনিম্ন তাপমাত্রায় উত্তরের জেলা পাবনার বিপর্যন্ত হয়ে পড়েছে জনজীবন। পাবনার ঈশ্বরদীতে রোববার সকালে ৫.৫ ডিগ্রী সেলসিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড করেছে স্থানীয় আবহাওয়া অধিদপ্তর।

ঈশ্বরদী আবহাওয়া অধিদপ্তরের টিপিও আব্দুল খালেক সরকার এ তথ্য নিশ্চিত করে জানান, এ অবস্থা আরও বেশ কয়েকদিন থাকতে পারে। শৈত্য প্রবাহ শুরুর পর থেকে পাবনায় সূর্যের দেখা মিলেও কনকনে হিমেল হাওয়া শীতের মাত্র আরো বাড়িয়ে দিয়েছে। সন্ধ্যার পর রাত যত বাড়তে থাকে তাপমাত্রাও পাল্লা দিয়ে কমতে থাকে।

বলা যায় যে দুর্বিষহ সহ অবস্থা বিরাজ করছে পাবনার জনজীবনে। জরুরী কাজ ছাড়া ঘর থেকে বের হচ্ছেনা অনেকে। এদিকে ঘন কুয়াশার কারণে ঈশ্বরদী বাইপাস ষ্টেশনের কাছে ঈশ্বরদী হতে চাঁপাইনবাবগঞ্জ গামী কমিউটার ট্রেনের ইঞ্জিন লাইনচ্যুত হয়েছে। এতে দক্ষিণাঞ্চলের সাথে ট্রেন চলাচল বন্ধ থাকে।

 

এ সময় রাজশাহী হতে ছেড়ে আসা খুলনা ও গোয়ালন্দঘাট গামী আন্তঃনগর মধুমতি এক্সপ্রেস ও সাগরদাড়ি এক্সপ্রেস ট্রেন আটকা পড়েছে ছিল। আধা ঘন্টা পর তা স্বাভাবিক হয়েছে। সূর্যের দেখা মিললেও কনকনে শীতল হাওয়ায় শীতর তীব্রতা আরো বেড়েছে। শীত বাড়ার সাথে সাথে নিউমোনিয়া, ডাইরিয়াসহ ঠান্ডা জনিত রোগের প্রকপ বেড়ে চলছে। পাবনায় গত দুই মাসে ঠান্ডজনিত রোগে ৭২ জন শিশুর মৃত্যু হয়েছে বলে হাসপাতাল সূত্র জানিয়েছে। প্রতিদিনই হাসপাতালে রোগীদের ভীড় বেড়ে চলছে। 

বাতাস আর ঘন কুয়াশার মধ্যে মহাসড়কগুলোতে ধীর গতিতে যানচলাচল করছে। নিম্ন ও মধ্যম আয়ের মানুষগুলো দূর্যোগপূর্ণ আবহাওয়া উপেক্ষা করে গ্রামের প্রত্যন্ত অঞ্চল থেকে কাজের উদ্দেশ্যে শহরে এসে শীতের মধ্যে জুবুথুবু অবস্থায় রয়েছেন। কেউ বা খড়কুটিতে আগুন জ্বালিয়ে উষ্ণতা পেতে চেষ্টা চালাচ্ছেন। গরম কাপড়ের জন্য ছুটছে নিম্নবিত্তরা।

শহরের রাস্তায় ফুটপাতে দোকান গুলোতে ভীর বাড়ছে। এদিকে শীতার্ত মানুষের পাশে বিত্তশালীদের এগিয়ে আসার ব্যাপারটা এবার খুব কম লক্ষ্য করা যাচ্ছে। অসহায় মানুষের জন্য যে পরিমান গরম কাপড় বিতরণ করা হচ্ছে তা অতি সীমিত।

এ বিভাগের আরো সংবাদ

মন্তব্য করুন