শিরোনাম :

পীরগাছায় প্রেমিককে বাঁচাতে সাংবাদিককে ফাঁসানোর চেষ্টা


রবিবার, ২৯ মে ২০১৬, ০২:৫২ অপরাহ্ণ, বাংলাপ্রেস ডটকম ডটবিডি

পীরগাছায় প্রেমিককে বাঁচাতে সাংবাদিককে ফাঁসানোর চেষ্টা

রংপুর প্রতিনিধি: রংপুরের পীরগাছার কান্দি ইউনিয়নে স্বামী হত্যার ঘটনাকে ধামাচাপা দিতে ননদের স্বামী সাংবাদিককে ফাঁসানোর চেষ্টা করছে বলে হত্যাকারীর পরিবার ও জড়িত ঘাতক স্ত্রী বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে।

ঘটনা প্রকাশ হলে এলাকায় নিন্দার ঝড় উঠে, ফুঁসে উঠেছে সাংবাদিক, শিক্ষক ও সচেতন মহল।

গত শুক্রবার গভীর রাতে উপজেলার কান্দি ইউনিয়নের মনিরামপুর গ্রামের মৃত নজরুল ইসলাম মাষ্টারের ছেলে রাসেল মিয়া (২৮) দীর্ঘ দিন ধরে সব ধরনের মাদক সেবন সহ অপরাধ জগতের সাথে জড়িত বলে জানাযায়।

এছাড়াও সে জাল ডলার ব্যবসায়ী চক্রের সাথে জড়িত থাকার অভিযোগ রয়েছে। এই কারণে প্রায় রাতে রাসেলের বাড়িতে অপরিচিত লোকজনের যাতায়াত রয়েছে বলে সূত্রে জানা যায়।

সূত্রে জানা যায় এছাড়াও মাঝে মধ্যে তার বাড়িতে নেশার জগতের লোকজন নিয়ে গভীর রাত পর্যন্ত মাদকের আসর বসত। এনিয়ে একই বাড়িতে বসবাসরত ভগ্নিপতি সাংবাদিক মকবুল হোসেন ও শ্যালক রাসেলের সাথে মতবিরোধ সৃষ্টি হয়।

এই দিকে নেশার জগতের সন্ত্রাসী নারী লোভী জীবন মিয়া নামের এক যুবক যাতায়াতের মাঝে রাসেল মিয়ার স্ত্রী শিল্পী বেগম এর উপর কুনজর পড়লে এক সময় জীবন মিয়ার সাথে শিল্পী বেগম পরকিয়ায় জড়িয়ে পড়ে।

এই ঘটনা প্রকাশ পেলে মাঝে মধ্যে নিহত রাসেলের মায়ের সাথে পুত্র বধূর ঝগড়া হয় বলে এলাকা বাসি জানায়। এই ব্যাপারে রাসেলের মাতা রহিমা বেওয়ার সহিত কথা বললে তিনি জানান ঘটনার চার দিন পূর্বে গভীর রাতে রাসেল বাড়িতে না থাকার সুযোগে পুত্র বধূর প্রেমিক জীবন মিয়া শিল্পী বেগমের ঘরে ঢুকলে শ্বশুড়ী হাতে নাতে ধরে ফেলে।

এই ঘটনায় পুত্রবধূ ও শ্বাশুড়ীর মাঝে ঝগড়া বাঁধলে এলাকার লোকজন জানা জানি হয়। সাধারণের ধারনা উক্ত ঘটনাকে ধামা চাপা দিতে পুত্রবধূ ও তার পরকিয়া প্রেমিক পরিকল্পিত ভাবে হত্যার ঘটনা ঘটায়।

এইদিকে ঘটনাটি প্রেমিকের পরিবারে প্রকাশ পেলে মামলাটিকে ভিন্নখাতে নেয়ার কৌশল হিসেবে নিহতের স্ত্রী শিল্পী বেগমকে বাদী করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করে।

এইদিকে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে একটি মোবাইল ফোন উদ্ধার করে সেই সূত্র ধরে পর দিন শনিবার আব্দুল জব্বার ও নিহতের স্ত্রীর পরকিয়া প্রেমিক জীবন মিয়াকে আটক করেছে।

অপরদিকে বাদীর ভাষ্যমতে পুলিশ তার আপন বড় ভগ্নিপতি ডেইলি নিউ নেশন পত্রিকা ও সাবেক ‘দৈনিক প্রথম আলো’ পত্রিকার প্রতিনিধি মকবুল হোসেনকে গ্রেফতার করে। পরবর্তীতে পুলিশ তাকে জেল হাজতে পাঠান।

এইদিকে বাড়িতে বসবাসকারী নিহত রাসেলের বড় বোন রুনা লায়লা জানান, তার ছোট ভাই রাতে নিখোঁজের খবর সকালে শিল্পী বেগমের মুখে শোনার পর নিহত রাসেলের সন্ধান করতে থাকলে লোক মুখে শুনতে পান বাড়ির পার্শ্বে আবাদী জমিতে তার ছোট ভাইয়ের গলা কাটা লাশ পড়ে আছে।

পরবর্তিতে পীরগাছা থানা খবর পেয়ে লাশ উদ্ধার করে আইনী ব্যবস্থা গ্রহণ করেন। এব্যাপারে নিহতের বড়বোন রুনা লায়লা অভিযোগ করে বলেন তিনি ও তার মা প্রকৃত ঘটনা উল্লেখ করে থানায় মামলা দায়ের করতে চাইলেও দিনভর নানা নাটকীয়তা চলে।

পরবর্তিতে রাসেলের স্ত্রী শিল্পী বেগম প্রেমিকের পরিবারের কথামত নিজে বাদী হয়ে পরকিয়া প্রকৃত ঘটনাকে আড়াল করে একটি মামলা দায়ের করে।

এইদিকে নিরুপায় নিহতের মাতা ও তার বড়বোন সংশ্লিষ্ট আইন রক্ষাকারী উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনায় সঠিক তদন্তের দাবি করেছেন।

এইচআর/এমকে

এ বিভাগের আরো সংবাদ

মন্তব্য করুন