শিরোনাম :

অটোর শহরে পরিণত হয়েছে ডিমলা-ঘটছে প্রাণহানি ঘটনা


বুধবার, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৭, ০২:১৬ অপরাহ্ণ, বাংলাপ্রেস ডটকম ডটবিডি

অটোর শহরে পরিণত হয়েছে ডিমলা-ঘটছে প্রাণহানি ঘটনা

নীলফামারী প্রতিনিধি: নীলফামারীর ডিমলায় ব্যাটারী চালিত অটো বাইকের অত্যাচারে অতিষ্ট এলাসাকাবী।বেপরোয়া চালনায় বেড়েই চলছে প্রতিদিন ছোট বড় দূর্ঘটনা।

উপজেলা সদরের প্রধান সড়ক ব্যস্ততম এলাকা হিসেবে পরিচিত উপজেলা গেট, শুটিবাড়ি মোড, কাউসার বাজার, টিএন্ডটি মোড়ে সকাল হতে রাত ১০ টা পর্যন্ত অবৈধভাবে অটোবাইক দাড়িয়ে রাখায় পুরো শহর জুড়ে দূর্বিসহ যানজট লেগে থাকে প্রতিনিয়ত।অটোর শহরে পরিনত হয়েছে পুরো উপজেলা সদর।শহরের প্রধান সড়ক সহ বাইপাস সড়ক গুলিতে বেপরোয়া দ্রুত গতিতে অটোবাইক চালনায় কয়েকদিন পর পর প্রানহানীর মত ঘটনাও ঘটে চলছে।গত (২৮ নভেম্বর) ডিমলা ডোমার সড়কে উপজেলা সদরের হাজী পাড়া গ্রামের নির্মান শ্রমিক সোলায়মানের ৪ বছরের শিশু কন্যা তামান্না দ্রুত গতির অটোবাইকের ধাক্কায় ঘটনা স্থলেই মৃত্যু বরন করে।(৮ ডিসেম্বর) ডিমলা গ্রামের তাইজুদ্দিনের এসএসসি পরীক্ষার্থী কন্যা তাজলি আক্তার (১৫) ডোমার ডিমলা সড়কের সীমা সিমেনা হল এলাকায় কোচিং করতে যাওয়ার সময় বেপরোয়া অটো ও পাওয়ার টিলারের সংঘর্ষে গুরুত্বর আহত হলে, স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে ডিমলা হাসপাতালে ভর্তি করান।এছাড়া প্রতিদিন ডিমলা শহীদ মিনার হইতে ডোমার যাওয়ার সড়কে স্কুল গামী ছাত্র ছাত্রীরা দূর্ঘটনার স্বীকার হচ্ছে।

এ বিষয়ে ডিমলা সদরের সাইদুল ইসলাম, শফিকুল ইসলাম, আবুল কাশেম, আছির উদ্দিন, মিজানুর রহমান বলেন, ব্যাটারী চালিত অটোবাইক গুলি দ্রুত গতিতে বেপরোয়া চালানা এবং রাতে এলইডি লাইট দিয়ে চালানর কারনেই এসব দূর্ঘটনা ঘটছে।এছাড়া প্রধান সড়কের উপড় অবৈধভাবে অটোবাইক রাখায় যানজট সৃষ্টির কারনে জনসাধারনের স্বাভাবিক চলাচলে বিঘœ ঘটছে।প্রশাসনিক হস্তক্ষেপেই পারে এই সমস্যার সমাধান দিতে।তারা দ্রুত প্রশাসনিক হস্তক্ষেপ কামনা করছেন।ডিমলা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নাজমুন নাহার বলেন, বেপরোয়া অটোবাইক চালোনা ও সড়ক গুলিতে অবৈধ অটোবাই রাখার বিরুদ্ধে খুব শিগ্রই অভিযান পরিচালনা করা হবে।

টিআইকে

 

এ বিভাগের আরো সংবাদ

মন্তব্য করুন