শিরোনাম :

তরকারি থেকে লবণ কমানোর কিছু টিপস


বুধবার, ২৫ এপ্রিল ২০১৮, ০৮:৪১ পূর্বাহ্ণ, বাংলাপ্রেস ডটকম ডটবিডি

তরকারি থেকে লবণ কমানোর কিছু টিপস

ডেস্ক প্রতিবেদন: অসাবধানতাবশত তরকারিতে মাঝে মাঝে লবণ বেশি হয়ে যায়।লবণের পরিমাণ যদি সামান্য পরিমাণে বেশি হয় তাহলে সেই খাবার আমরা খেতে পারি।কিন্তু, খুব বেশি হয়ে গেলে ঝামেলার শেষ থাকে না।খাবার মুখে তোলাই দুষ্কর ব্যাপার হয়ে যায়।বাধ্য হয়ে আমরা খাবার ফেলে দিই।কিন্তু, এবার থেকে আর খাবার ফেলে দিতে হবে না।খাবারে যদি লবণ বেশি দিয়ে ফেলেন তাহলে চিন্তা করবেন না।খাবারের নোনতা ভাব দূর হবে নিমেষেই।কীভাবে খাবার থেকে লবণ দূর করবেন দেখে নিন তার কিছু টিপস-

কোনও সবজি ভাজাতে লবণের পরিমাণ বেশি হয়ে গেলে তাতে বেশ খানিকটা পেঁয়াজ ও ধনেপাতা কুচিয়ে দিয়ে দিন।ইচ্ছা হলে ট্যোমাটো কুচিও দিতে পারেন।এরপর মিশ্রণটি ভালো করে ভেজে নিন। দেখবেন লবণের পরিমাণ কমে গেছে।

ক্রিম মিশ্রিত কোনও খাবারে লবণ বেশি হলে, তাতে আরও একটু ক্রিম মিশিয়ে নিন।তাতে খাবার সুস্বাদুও লাগবে, লবণও কমে যাবে।

কোনও ঝোল বা ডাল থেকে নোনতাভাব দূর করার জন্য ছোটো ছোটো ময়দার বল তৈরি করে ঝোল বা ডালের মাঝে ফুটতে দিন।খানিকক্ষণ ফুটিয়ে খাবার থেকে এই বলগুলি তুলে ফেলে দিন নোনতাভাব কমে যাবে।

দুধ খাবারের নোনতাভাব কম করতে সাহায্য করে।কোনও খাবারে দুধ যোগ করলে সেটার স্বাদে কোনও হেরফের হয় না।কিন্তু, খাবারের নোনতা ভাব কমে যায়।

মুরগির মাংসের রেসেপিতে লবণ বেশি হয়ে গেলে তাতে অল্প টক দই ও চিনি ভালো করে মিশিয়ে নিন। এরপর সেটি ১৫ থেকে ২০ মিনিট ঢাকা দিয়ে রাখুন।এতে খাবারের নোনতাভাব কমে যায়।পাশাপাশি খাবারে আসবে এক ভিন্ন স্বাদ।

মাছের ঝোল বা ঝালে লবণ বেশি হয়ে গেলে তাতে ডালের বড়ি যোগ করুন।বড়ি হালকা তেলে ভেজে তরকারিতে দিন।এতে ঝোল বা ঝালে এক অন্য স্বাদ আসবে।

যে কোনও তরকারি থেকে নোনতাভাব কম করবার জন্য তাতে সিদ্ধ আলু দিন।তারপর খানিকক্ষণ ফুটিয়ে নিন।এরপর ইচ্ছা করলে তরকারি থেকে আলু তুলে ফেলে দিতে পারেন।

খাবারের অতিরিক্ত লবণ কমাতে ১ চামচের ৩ ভাগের ১ ভাগ চামচ সাদা ভিনিগার ও হাফ চামচ চিনি মিশিয়ে ২ মিনিট গরম করে নিন।ব্যাস নোনতা ভাব ভ্যানিশ হয়ে যাবে।

এ বিভাগের আরো সংবাদ

মন্তব্য করুন