শিরোনাম :

নির্বাচক প্যানেলে বড় পরিবর্তনের শঙ্কা


বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই ২০১৯, ১১:০০ পূর্বাহ্ণ, বাংলাপ্রেস ডটকম ডটবিডি

নির্বাচক প্যানেলে বড় পরিবর্তনের শঙ্কা

ক্রীড়া: বর্তমানে টাইগারদের প্রধান নির্বাচকের দায়িত্ব পালন করছেন মিনহাজুল আবেদিন নান্নু। তার সহযোগী নির্বাচক হিসেবে আছেন হাবিবুল বাশার সুমন। তবে এই দুই নির্বাচকের মেয়াদ শেষ হয়ে গেছে এ বছর জুন মাসেই। যদিও তারা এখনো দায়িত্ব পালন করে যাচ্ছেন। শ্রীলঙ্কা সফরেও তারা নির্বাচন প্রক্রিয়াতে ছিলেন। তবে গুঞ্জন রয়েছে নির্বাচক প্যানেলে আসতে পারে বড় পরিবর্তন। বিশেষ করে প্রধান নির্বাচক হিসেবে নান্নুকে আর না-ও দেখা যেতে পারে। এমনকি দু’জনকেই পরিবর্তন করা হতে পারে।

আবার তাদের মধ্য থেকে রাখা হতে পারে শুধু একজনকে। বিশেষ করে প্রধান নির্বাচক হিসেবে দায়িত্ব নিবেন কে সেটাই প্রশ্ন। যতটা জানা গেছে এবার প্রধান নির্বাচকের দায়িত্ব পেতে পারেন হাবিবুল বাশার। নির্বাচক প্যানেলে দীর্ঘ দিন ধরেই আছেন জাতীয় দলের সাবেক এই অধিনায়ক। তার দীর্ঘ অভিজ্ঞতার কারণেই শেষ পর্যন্ত তার কাঁধেই উঠতে পারে এই দায়িত্ব।

এ বিষয়ে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন বলেন, ‘আমাদের বোর্ড মিটিংয়ে এ নিয়ে প্রস্তাবনা আছে। আগামী ২৭শে জুলাই বসে আলোচনা করবো। বদলানো হবে নাকি নতুন আসবে তা তখনই ঠিক করা হবে।’

দুই নির্বাচকের পারফরম্যান্স নিয়ে বিসিবি সন্তুষ্ট। বিশেষ করে গতকাল সংবাদ সম্মেলনে তাদের সেই সন্তোষের কথা তুলে ধরেছেন বিসিবি সভাপতি।

তিনি বলেন, ‘তাদের (নির্বাচক) পারফরম্যান্স! আমি বলবো ভালো, খারাপ না। অসন্তুষ্ট হওয়ার মতো কারণ আমি এখনো দেখিনি। এমন কোনো খেলোয়াড়তো দেখিনি যাদের নেয়া উচিত ছিল কিন্তু নেয়নি। আবার যারা জাতীয় দলে চলে না এমন কোনো ক্রিকেটারকে দলে নেয়া হয়নি। সব দিক থেকে যদি বিবেচনা করতে বলেন আমি বলবো ঠিক আছে। যদিও আমি দলের জয়ের সঙ্গে নির্বাচকদের পারফরম্যান্স কখনো বিবেচনা করি না। কারণ যত ভালো দলই তারা নির্বাচন করুক, ক্রিকেটাররা খেলতে না পারলে তাদের তো কিছুই করার নেই।’
তবে বোর্ড সভাপতির এই সন্তোষের পরও জানা যাচ্ছে পরিবর্তন আসতে পারে নির্বাচক প্যানেলে। বিশেষ করে প্রধান নির্বাচক হিসেবে মিনহাজুল আবেদিনকে রাখা হবে কিনা তা নিয়ে বোর্ডের মধ্যেই রয়েছে নানা মত। বোর্ড কর্তারা না চাইলে হয়তো নান্নুকে আর প্রধান নির্বাচক হিসেবে নাও দেখা যেতে পারে। সেই ক্ষেত্রে প্রশ্ন হচ্ছে তাহলে প্রধান নির্বাচক কে হবেন? বেশ কয়েকটি সূত্রে জানা গেছে সেই দৌড়ে এগিয়ে আছেন হাবিবুল বাশারই। কারণ আকরাম খানের নির্বাচক প্যানেলেও তিনি ছিলেন। এছাড়াও কাজ করেছেন ফারুক আহমেদের দ্বিতীয় মেয়াদের নির্বাচক কমিটিতেও। এরপর টানা কাজ করছেন মিনহাজুল আবেদিনের সঙ্গে।

বাশার বলেন, ‘এটি আসলে বোর্ডের বিষয়। আমি মনে করিনা আমাদের কোনো মতামত দেয়ার কিছু আছে। তারা যদি মনে করেন আমাদের রাখতে পারেন আবার নাও রাখতে পারেন। এটি বোর্ডের বিষয়। আমি না থাকলেও আমার কিছু বলার নেই। আর থাকলে অবশ্যই যেভাবে আন্তরিকতা ও দায়িত্ব নিয়ে কাজ করছি সেইভাবে করে যাব। নির্বাচক প্যানেল এবার তিনজনেরও হতে পারে বলেও জানা গেছে। অন্যদিকে নতুন মুখ হিসেবে একটি নাম বেশ শোনা যাচ্ছে। তিনি আরেক সাবেক অধিনায়ক খালেদ মাসুদ পাইলট। বর্তমানে তিনি ক্লাব ক্রিকেটে কোচের দায়িত্ব পালন করছেন। নিউজিল্যান্ড সফরে তিনি দলের ম্যানেজার হিসেবেও দায়িত্ব পালন করেছেন। তবে তাকে নিয়ে রয়েছে নানা রকম বিতর্ক। আর সেই বিতর্কের কারণে হয়তো শেষ পর্যন্ত তাকে দেখা নাও যেতে পারে। আসতে পারেন নতুন কোনো মুখ।

তবে বোর্ডের একটি সূত্র জানিয়েছে আরো একবার হয়তো আস্থা রাখা হতে পারে মিনহাজুল আবেদিনের উপর। তবে সেই ক্ষেত্রে বোর্ডের কর্তাদের ইচ্ছা থাকতে হবে। আর বোর্ড সভাপতি চাইলে হয়তো তিনি থেকেও যেতে পারেন।

এ বিষয়ে বিসিবির সিইও নিজামুদ্দিন চৌধুরী বলেন, ‘আসলে তাদের মেয়াদ শেষ হলেও কাজ করছেন। এ’ দল নির্বাচন করেছেন, এমনকি শ্রীলঙ্কা সফরেও দল তারা দিয়েছেন। এখন পুরোটাই বোর্ডের মিটিংয়ে সিদ্ধান্ত হবে। সেখানেই নির্ধারণ হবে তাদের ভাগ্য।’

এ বিভাগের আরো সংবাদ

মন্তব্য করুন